Headlines
Loading...
বর্ধমানে আম আদমি পার্টির পোস্টার, আলোড়ন

বর্ধমানে আম আদমি পার্টির পোস্টার, আলোড়ন


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,বর্ধমান: বিধানসভা, উপ নির্বাচন থেকে পুরনিগম এমনকি রাজ্যের ১০৮টির মধ্যে ১০২টি পৌরসভা দখল করার পরেও পশ্চিমবঙ্গে শাসক তৃণমূলের গলার কাঁটা হয়ে ওঠার চেষ্টা করছে বেশ কয়েকটি রাজনৈতিক দল। সম্প্রতি দেশের বেশ কয়েকটি রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচন শেষ হয়েছে। আর সেখানে পাঞ্জাবের ক্ষেত্রে দেখা গেছে আম আদমি পার্টি (আপ) সেই রাজ্যের ক্ষমতায় এসেছে। ফলে দেশের রাজনীতির প্রেক্ষাপটে আপ এর গুরুত্ব বাড়ার সম্ভাবনাও তৈরি হয়েছে বলে রাজনৈতিক মহলে আলোচনাও শুরু হয়েছে। আর এরই মধ্যে খোদ বর্ধমান শহরের একাধিক জায়গায় আম আদমি পার্টির সুপ্রিমো অরবিন্দ কেজরিওয়ালের ছবি দেওয়া পোস্টার পড়ার ঘটনায় আলোড়ন পড়েছে শহরে। 


কে বা কারা এই পোস্টার লাগিয়েছে তা নিয়ে স্পষ্ট করে কেউ কিছুই জানাত পারেনি। তবে গোটা রাজ্যের সাথে জেলাওয়ারি সদস্য সংগ্রহের কাজ যে এই আম আদমি পার্টি শুরু করে দিয়েছে, তা এই পোস্টার থেকেই বোঝা গেছে বলেই মত প্রকাশ করেছে তৃণমূল কংগ্রেস দলের একাংশ। প্রসঙ্গত, দিল্লিতে ক্ষমতাসীন ছিল আম আদমি পার্টি তথা আপ। দলের সুপ্রিমো অরবিন্দ কেজরিওয়ালের নেতৃত্বে এবার পাঞ্জাবের ক্ষমতা দখল করেছে। বেশ কিছুদিন ধরেই গোটা দেশের বিভিন্ন রাজ্যে আপ এর পক্ষ থেকে আবেদন জানানো হচ্ছিল তাদের দলের সদস্যপদ গ্রহণ করার জন্য। বর্ধমান শহর বরাবরই রাজনৈতিক সচেতন বলেই সকলের ধারণা। 


সদ্য পৌরসভা নির্বাচনে ৩৫টি ওয়ার্ডের তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থীরা বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন। কার্যত দ্বিতীয়বারের জন্যও বিরোধীশূন্য পুরবোর্ড গঠন করতে চলেছে তৃণমূল। আর এই সময়ে শহরের বিভিন্ন জায়গায় আপের পোস্টার পরাকে কেন্দ্র করে আলোড়ন পড়েছে শহর জুড়ে। পোস্টারে রীতিমত দলের সঙ্গে যোগাযোগের জন্য ফোন নাম্বার সহ আপের সুপ্রিমো কেজরিওয়ালের ছবিও রয়েছে। ফলে নতুন করে এই পোস্টার রাজনৈতিক মহলে আলোড়ন ছড়িয়েছে। তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা মুখপাত্র প্রসেনজিৎ দাস বলেছেন, পশ্চিমবঙ্গে গণতন্ত্র আছে। যেকোনো রাজনৈতিক দল পোস্টার লাগাতে পারে। এতে তৃণমূল কংগ্রেসের ক্ষেত্রে কোনো প্রভাব দেখা দেবে না। এখন দেখার আম আদমি পার্টি বা আপ আগামী দিনে শহরে কতটা প্রভাব ফেলতে পারে।
(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});