Headlines
Loading...
বর্ধমান জেলা জুড়ে মহা সমারোহে পালিত হল তৃণমূলের প্রতিষ্ঠা দিবস

বর্ধমান জেলা জুড়ে মহা সমারোহে পালিত হল তৃণমূলের প্রতিষ্ঠা দিবস


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমান: সারা রাজ্যের সঙ্গে পূর্ব বর্ধমান জেলার প্রতিটি ব্লক, মহকুমা থেকে বর্ধমান শহরেও পয়লা জানুয়ারি পালিত হল তৃণমূল কংগ্রেসের ২৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী। গোটা জেলা জুড়েই এদিন মহা সমারোহে পালিত হয়েছে দলীয় এই দিনটি। পাড়ায় পাড়ায় সকাল থেকেই মিষ্টি বিতরণ সহ একাধিক কর্মসূচী পালন করেছে তৃণমূলের শাখা সংগঠনের নেতা-কর্মীরা। এদিন তৃণমূল কংগ্রেসের মূল অনুষ্ঠানটি হয় বর্ধমান শহরের কালিবাজারের তৃণমূল ভবনে। এদিন দলীয় পতাকা উত্তোলন করেন তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা সভাপতি রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায়। উপস্থিত ছিলেন প্রাক্তন জেলা সভাপতি তথা রাজ্যের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ সহ জেলা নেতারাও। দলের জেলা অফিসে এদিন তৃণমূল কংগ্রেসের উদ্যোগে বিশিষ্ট ব্যক্তিদের সম্মর্ধনাও জানানো হয়। 


কার্জন গেটের সামনে বর্ধমান দক্ষিণ কেন্দ্রের বিধায়ক খোকন দাসের জনসেবা কেন্দ্রেও পালিত হয় প্রতিষ্ঠা দিবস। দলীয় পতাকা উত্তোলন, মনীষীদের প্রতিকৃতিতে মাল্যদান সহ এদিন বর্ধমানের মানুষের পরিষেবার জন্য চারটি এম্বুলেন্স এবং দুটি স্বর্গরথের উদ্বোধন করা হয়। বিতরণ করা হয় তিন হাজার কম্বল। এদিন বর্ধমান শহরের প্রতিটি ওয়ার্ডেই এই দিনটিকে পালন করা হয়। করোনা সংক্রমণ বাড়লেও কার্যত প্রতিটি জায়গাতেই সামাজিক দূরত্ব বিধিকে বুড়ো আঙুল দেখিয়েই পালিত হয়েছে এই দিনটি। শহরের ১৮নং ওয়ার্ডে তৃণমূলের জয়হিন্দ বাহিনীর মূল অফিসে পালিত হয় দলের প্রতিষ্ঠা দিবস। উপস্থিত ছিলেন জয়হিন্দ বাহিনীর শহর সভাপতি পল্লব দাস, যোগেশ্বর বৈরাগ্য সহ একাধিক নেতৃবৃন্দ ও কর্মীরা। 


অন্যদিকে এদিন বর্ধমান পুরসভার ৬নং ওয়ার্ডে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রতিষ্ঠা দিবসে বক্তব্য রাখতে গিয়ে প্রাক্তন কাউন্সিলার মহম্মদ সেলিম জানিয়েছেন, দলের ক্ষমতাকে ব্যবহার করে কিছু স্বার্থান্বেষী মানুষ কোটি কোটি টাকার মালিক হয়ে যাচ্ছে। তাদের জন্য দলের ভাবমূর্তি নষ্ট হচ্ছে। দলনেত্রীর ভাবমূর্তি নষ্ট হচ্ছে। এই সমস্ত মানুষদের রুখতে হবে। দল ঘোষণা না করলেও কোনো কোনো নেতা কারা কারা পুর নির্বাচনে প্রার্থী হবেন তার তালিকাও প্রকাশ করছেন। এগুলো বন্ধ করতে হবে। দলের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে এদিন গলসীতে আদড়াহাটি স্বাস্থ্যকেন্দ্রে থাকা রোগীদের ফল, মিষ্টি তুলে দিয়েছেন তৃণমূল নেতৃত্বরা। এদিকে, জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, শুক্রবার জেলায় মোট ১৫জন করোনা আক্রান্ত হয়েছেন। যার মধ্যে বর্ধমান পুরসভাতেই আক্রান্ত হয়েছেন ৭জন।


 এদিন জেলা তৃণমূল কংগ্রেস ভবনের অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখতে গিয়ে রাজ্যের মন্ত্রী তথা প্রাক্তন জেলা সভাপতি স্বপন দেবনাথ বলেন, যাঁদের রক্তের বিনিময়ে আজ তৃণমূল কংগ্রেস ক্ষমতায় আছেন তাঁদের যেন ভুলে না যাই। তৃণমূল সেই সমস্ত শহীদ পরিবারের পাশে আছে। এদিন জেলা তৃণমূল অফিসে আয়োজিত এই অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে হাজির ছিলেন জেলা পরিষদের সভাধিপতি শম্পা ধাড়া, মেণ্টর উজ্জ্বল প্রামাণিক, পূর্ত কর্মাধ্যক্ষ উত্তম সেনগুপ্ত, শহর তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি অরূপ দাস সহ অন্যান্যরা।



0 Comments: