Headlines
Loading...
দুদিনের মধ্যে বর্ধমান পুরসভার নতুন প্রশাসকের নাম ঘোষণা, প্রণব চট্টোপাধ্যায়ের পাশেই শাসক দল

দুদিনের মধ্যে বর্ধমান পুরসভার নতুন প্রশাসকের নাম ঘোষণা, প্রণব চট্টোপাধ্যায়ের পাশেই শাসক দল


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমান: বর্ধমান পুরসভার প্রশাসক মন্ডলীর চেয়ারম্যান তৃণমূল নেতা প্রণব চট্টোপাধ্যায়কে সিবিআই গ্রেপ্তার করার পর তৃণমূল কংগ্রেস দলীয়ভাবে প্রণব চট্টোপাধ্যায়ের পাশেই দাঁড়াল। তবে এখনই রাস্তায় নেমে কোনো পদক্ষেপ গ্রহণ করছে না দল বলেই শনিবার এক সাংবাদিক বৈঠকে জানিয়ে দিলেন জেলা সভাপতি রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায়। এদিকে নতুন পুর প্রশাসক কে হতে চলেছেন তা নিয়ে বিস্তর চর্চা শুরু হয়ে গেছে বর্ধমান জুড়ে। এমনকি বেশ কয়েকজন বর্ষীয়ান তৃণমূল নেতার নাম নিয়েও গুঞ্জন শুরু হয়েছে। আলোচনায় উঠে আসছে একাধিক পদে থাকা কিছু নেতার নামও। তবে শেষমেষ পুর প্রশাসকের দায়িত্ব কার হাতে দেওয়া হবে তা আগামী সোমবারের মধ্যেই পরিষ্কার হয়ে যাবে বলেই জানিয়েছেন রবি বাবু। 


বৃহস্পতিবার রাতে প্রণববাবুকে কলকাতায় সিবিআই গ্রেপ্তার করার পর শুক্রবার তাঁকে আসানসোল কোর্টে পেশ করে ৩ দিনের হেফাজতে নিয়েছে সিবিআই। আর শনিবার বর্ধমানে তৃণমূল কংগ্রেসের দলীয় অফিসে সাংবাদিক বৈঠকে পূর্ব বর্ধমান জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের সভাপতি রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ‌্যায় জানিয়ে দিলেন দল প্রণববাবুর পাশেই আছে। পাশাপাশি পুরসভা পরিচালনায় যাতে কোনোরকম সমস্যা না হয় সেজন্য সোমবারের মধ্যেই নতুন প্রশাসক নিয়োগ করা হবে বলেও তিনি এদিন জানিয়েছেন। 


রবীন্দ্রনাথবাবু এদিন জানিয়েছেন, রাজনৈতিক মোকাবিলায় ব্যর্থ হয়েই বিজেপি নিজেদের প্রতিহিংসা চরিতার্থ করতে হাতিয়ার হিসাবে ব্যবহার করছে কেন্দ্রীয় সংস্থাগুলিকে। প্রণব চট্টোপাধ্যায়ের ক্ষেত্রেও বিজেপি সেই ট্রাডিশানই চালাচ্ছে। তিনি এদিন জানিয়েছেন, বর্ধমান সন্মার্গ চিটফাণ্ড কাণ্ডে দীর্ঘদিন ধরেই তদন্ত চলছে। এমনকি সিবিআই চার্জসিটে প্রণববাবুর নামও ছিল না। কিন্তু তিনি প্রশাসক হিসাবে বসার পরই তাঁর নাম সাপ্লিমেণ্টারী চার্জসিটে রাখা হয় বলে এদিন অভিযোগ করেছেন রবীন্দ্রনাথবাবু। 


রবীন্দ্রনাথবাবু এদিন প্রশ্ন তুলেছেন, রাজ্য জুড়ে যখন পুরভোটের দামামা বেজে উঠেছে তখন সিবিআইয়ের এই অতি সক্রিয়তার কারণ কি? পৌর প্রশাসককে কালিমালিপ্ত করতেই কি নতুন এই নাটক করা হচ্ছে - প্রশ্ন তুলেছেন তিনি। রবীন্দ্রনাথবাবু এদিন জানিয়েছেন, এভাবে তৃণমূল কংগ্রেসের মাথা নোয়ানো যাবে না। বিজেপির সব যড়যন্ত্র ব্যর্থ করে পুরভোটেও জয়ী হবে তৃণমূলই। এদিকে, প্রণববাবুর এই গ্রেপ্তারীর ঘটনায় বর্ধমান শহর জুড়েই চলছে চাপান উতোর। যদিও এর ফলে বর্ধমান পুরসভার পরিচালনায় কোনো সমস্যাই হবে না বলে এদিন জানিয়েছেন উপ পুর প্রশাসক আইনুল হক। 


তিনি জানিয়েছেন, প্রণববাবুকে সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে। পাল্টা তিনি প্রশ্ন তুলে জানান, বিজেপির এক নেতা আসার পরই রাত্রিবেলায় প্রণববাবুকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। এটাও ভাবা দরকার। উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার বর্ধমানে একটি রোড শোয়ে অংশ নেন বিজেপি নেতা শুভেন্দু অধিকারী। অপরদিকে, সানমার্গ চিটফাণ্ড মামলায় প্রণব চট্টোপাধ‌্যায়কে গ্রেপ্তার করার পর শুরু হয়েছে নতুন করে চাপান উতোর। খোদ বর্ধমান আদালতেও বর্ধমান সানমার্গ সহ অন্যান্য কয়েকটি চিটফাণ্ড নিয়ে একাধিক মামলা রয়েছে। কিন্তু অভিযোগ, সেই সমস্ত মামলায় পুলিশ কোনোরকম তদন্তই করেনি এতকাল। কার্যত মামলাগুলিকে ফেলে রাখা হয়েছে। প্রশ্ন উঠেছে তা নিয়েও।

0 Comments: