Headlines
Loading...
বর্ধমানে জেলা তৃণমূলের বিজয়া সম্মিলন, করোনা বিধি শিকেয়, দলের ঐক্য ফেরানার ডাক নেতৃত্বের

বর্ধমানে জেলা তৃণমূলের বিজয়া সম্মিলন, করোনা বিধি শিকেয়, দলের ঐক্য ফেরানার ডাক নেতৃত্বের


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমান: রবিবার বর্ধমান শহরের অরবিন্দ স্টেডিয়ামে জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের উদ্যোগে অনুষ্ঠিত হল বিজয়া সম্মিলন। অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দপ্তরের মন্ত্রী তথা প্রাক্তন জেলা সভাপতি স্বপন দেবনাথ, বর্তমান জেলা সভাপতি রবীন্দ্রনাথ চ্যাটার্জী সহ বিধায়ক, জনপ্রতিনিধিরাও। এদিন এই বিজয়া সম্মেলনে ডাকা হয়েছিল একেবারে বুথ স্তরের নেতৃত্ব ও কর্মীদের। রীতিমত অরবিন্দ স্টেডিয়াম ভর্তি করে কর্মী সমর্থকরা হাজির হলেও কোনো বালাই ছিল না করোনা বিধির। 


এজন্য পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের মেণ্টর উজ্জ্বল প্রামাণিক বারবার কর্মীদের কাছে করোনা বিধি মেনে চলার আবেদন রাখলেন। আবেদন করলেন সকলকে মাস্ক পরার জন্যও। এদিন উজ্জ্বল প্রামাণিক বলেন, বিরোধীরা এই সুযোগকে কাজে লাগিয়ে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর বিরুদ্ধে সমালোচনা করছে। তাই এব্যাপার সতর্ক হতে হবে। কোনোভাবেই করোনা বিধিকে অমান্য করে দলনেত্রীর সম্মান নষ্ট করবেন না। 


অন্যদিকে, এদিন বক্তব্য রাখতে গিয়ে প্রাক্তন জেলা সভাপতি তথা রাজ্যের প্রাণী সম্পদ বিকাশ দপ্তরের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথ জানান, রাজ্য নেতৃত্বের নির্দেশ যেমন জেলা নেতৃত্ব মানবেন, তেমনি জেলা নেতৃত্বের নির্দেশ ব্লক নেতৃত্ব মানবেন এটাই হওয়া উচিত। কিন্তু তা হচ্ছে না। নিজের পছন্দের লোক না হলে কেউ কাউকে মানছেন না। এটা করলে হবে না। রীতিমত কটাক্ষ করেই এদিন স্বপনবাবু বলেন, এদিন প্রচুর নেতা-কর্মী আসার একটি কারণ সামনেই পুরভোট, পঞ্চায়েত ভোট। তাই টিকিট হাসিল করতেই এদিন অনেকে হাজির হয়েছেন। 


স্বপনবাবু বলেন, এখন থেকেই নানান তদ্বির তদারকি শুরু হয়েছে টিকিটের জন্য। তিনি বলেন, জেলা সভাপতি যে নির্দেশ দেবেন সেই নির্দেশ সকলকেই মানতে হবে। অন্যদিকে, বক্তব্য রাখতে গিয়ে এদিন অনেক বক্তাই বারবার দলের মধ‌্যে বিদ্বেষ এবং একে অপরের বিরুদ্ধে লড়াই না করার আবেদন করেছেন। তিনি জানিয়েছেন, কোনো বিভেদ নয়, কাঁধে কাঁধ মিলিয়েই সবাইকে লড়াই করতে হবে। অন্যদিকে জেলা সভাপতি রবীন্দ্রনাথ চ্যাটার্জি এদিন পঞ্চায়েত ভোটে যাতে বিরোধীরা কোনো সুযোগ তৈরি করতে না পারে তার জন্য সকলকে সংঘবদ্ধ হয়ে লড়াই করার আহবান জানান।

0 Comments: