Headlines
Loading...
গলসিতে পাঁজরে কাঁচি দিয়ে আঘাত করে খুনের অভিযোগ এক যুবকেকে, চাঞ্চল্য, গ্রেপ্তার অভিযুক্ত

গলসিতে পাঁজরে কাঁচি দিয়ে আঘাত করে খুনের অভিযোগ এক যুবকেকে, চাঞ্চল্য, গ্রেপ্তার অভিযুক্ত


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,গলসি: গলসি থানার পুরসা গ্রামে এক যুবকের রক্তাক্ত মৃতদেহ উদ্ধার কে কেন্দ্র করে বৃহস্পতিবার তীব্র চাঞ্চল্য ছড়াল। এদিন বিকেলে আচমকাই এই ঘটনায় হতচকিৎ হয়ে পড়েন এলাকাবাসী। প্রাথমিকভাবে পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, সফিউল ইসলাম মন্ডল(৩৯) নামে ব্যক্তির বাম পাঁজরে কাঁচি দিয়ে আঘাত করার কারণেই মৃত্যু হয়েছে ওই ব্যক্তির। মৃত ব্যক্তি পুরসা গ্রামেরই বাসিন্দা বলে জানা গেছে।

স্থানীয় গ্রামবাসী সেখ ফিরোজ আহম্মেদ জানিয়েছেন, এদিন বিকেল চারটা নাগাদ গ্রামের ভিতরে হঠাৎই সফিউলকে মাটিতে পরে কাতরাতে দেখে তিনি ছুটে যান। তখনই তিনি জানতে পারেন ধারলো ছুরি বা কাঁচি জাতীয় কোন ধারালো অস্ত্র দিয়ে শফিউল ওরফে কাঞ্চনের পাঁজরে আঘাত করা হয়েছে। অভিযোগের তির গ্রামের যুবক ফিরোজ মল্লিকের দিকে। তবে ঠিক কি কারনে সফিউলকে অস্ত্র দিয়ে আঘাত করা হয়েছে সে বিষয়ে ফিরোজ আহম্মেদ কিছু জানাতে পারেননি।

এদিকে মাটিতে পড়ে সফিউলকে রক্তাক্ত অবস্থায় কাতরাতে দেখে ফিরোজ আহম্মেদই প্রতিবেশিদের সাহায্য নিয়ে একটি টোটো করে সফিউলকে স্থানীয় পুরসা ব্লক প্রাথমিক স্বাস্থ্যকেন্দ্রে চিকিৎসার জন্য নিয়ে আসেন। পাশাপাশি খবর দেন সফিউলের বাড়িতে। যদিও হাসপাতালে নিয়ে আসার কিছুক্ষণের মধ্যেই মারা যান সফিউল। 

ঘটনার খবর পেয়ে প্রথমে পুরসা গ্রামের ঘটনাস্থল পরে হাসপাতালে গলসি পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। ঘটনায় অভিযুক্ত ফিরোজ মল্লিককে আটক করে গলসি থানার পুলিশ। পুলিশ জানিয়েছে, মৃতদেহ ময়না তদন্তের জন্য বর্ধমান মেডিকেল কলেজে পাঠানো হয়েছে। পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, মৃত ব্যক্তিকে কাঁচি দিয়ে আঘাত করা হয়েছিল। গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। ইতিমধ্যেই গ্রেপ্তার করা হয়েছে অভিযুক্তকে। এদিকে আচমকাই এই ঘটনার জেরে এলাকায় নেমেছে শোকের ছায়া।

0 Comments: