Headlines
Loading...
ভোটের কদিন আগে পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসকের বদলি, নতুন জেলাশাসক হলেন প্রিয়াঙ্কা সিংলা

ভোটের কদিন আগে পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসকের বদলি, নতুন জেলাশাসক হলেন প্রিয়াঙ্কা সিংলা


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমান: আর মাত্র ৮দিন পর পূর্ব বর্ধমান জেলায় পঞ্চম দফার প্রথম দফার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে চলেছে। আর ঠিক তার আগেই পূর্ব বর্ধমানের জেলা নির্বাচন আধিকারিক তথা জেলাশাসক হিসাবে এনাউর রহমানকে সরিয়ে দিল নির্বাচন কমিশন। পরিবর্তে জেলা নির্বাচন আধিকারিক তথা জেলাশাসকের দায়িত্বে নিয়ে আসা হল প্রিয়াঙ্কা সিংলাকে। শুত্রুবার দুপুরে নতুন জেলাশাসক হিসেবে তিনি তাঁর দায়িত্বভার গ্রহণ করেছেন। অন্যদিকে পূর্ববর্তী জেলাশাসক এনাউর রহমানকে সল্টলেকের রাজ্য খাদ্য প্রক্রিয়াকরণ ও উদ্যান পালন দপ্তরের ম্যানেজিং ডিরেক্টর পদে বদলি করা হয়েছে। জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, প্রিয়াংকা সিংলা শিলিগুড়িতে জি এস টি দপ্তরের স্পেশাল কমিশনারের দায়িত্বে ছিলেন।


 উল্লেখ্য, নির্বাচন কমিশন দুদিন আগেই আইএএস মিস শিল্পা গৌরীশারিয়া কে পূর্ব বর্ধমানের জেলা নির্বাচনী আধিকারিক পদে নিয়োগের নির্দেশ দেয়। কিন্তু বিশেষ কারণে তিনি দায়িত্বভার গ্রহণ করেননি। আর এরপরই প্রিয়াঙ্কা সিংলা কে পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক, জেলা নির্বাচনী আধিকারিক এবং কালেক্টর পদে নিয়োগের নির্দেশ দেয় কমিশন। যদিও আচমকা ভোটের কদিন আগে জেলাশাসককে সরিয়ে দেওয়া নিয়ে রাজনৈতিক চাপান উতোর শুরু হয়েছে। এদিকে, জেলাশাসককে সরিয়ে দেবার ঘটনায় পূর্ব বর্ধমান জেলা তৃণমূল কংগ্রেসের মুখপাত্র প্রসেনজিত দাসের অভিযোগ, নির্বাচনে বিজেপি নিশ্চিত হার জেনে গেছে। বিজেপিই নির্বাচন কমিশনকে দিয়ে এই কাজ করাচ্ছে। কিন্তু এতে কিছু লাভ হবে না। মানুষ তৃণমূলের সঙ্গে আছে। 


অন্যদিকে, এব্যাপারে বিজেপির জেলা সদরের সহ সভাপতি রমণ শর্মা জানিয়েছেন, তৃণমূল কংগ্রেস তাঁদের আধিকারিকদের দিয়ে ভোট করানোর জন্য জেলায় জেলায় আগে থেকেই বসিয়েছিল। এব্যাপারে বিজেপির পক্ষ থেকে বারবার নির্বাচন কমিশনের কাছে অভিযোগ জানানোও হয়েছিল। এখন যখন নির্বাচন কমিশন অভিযোগের সত্যতা পেয়ে সেই সমস্ত আধিকারিকদের সরিয়ে দিচ্ছে তখন তৃণমূল নিশ্চিত হার জেনে মিথ্যা অভিযোগ করছে। আসলে ওরা যতটা ভরসা করে বোমা, লাঠি, বারুদে ততটা দেশের সংবিধান, আইন বা নির্বাচন কমিশনের ওপর ভরসা রাখতে পারছে না বলেই এই ধরণের মন্তব্য করছে।


0 Comments: