Headlines
Loading...
গলসিতে অশান্তি রুখতে ড্রোন ক্যামেরা নামলো পুলিশ

গলসিতে অশান্তি রুখতে ড্রোন ক্যামেরা নামলো পুলিশ


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,গলসী: ষষ্ঠ দফা ভোটের দিন বৃহস্পতিবার সকালে গলসীর মনোহর সুজাপুর গ্রামে ২১৩ ও ২১৪ নং বুথে বিজেপির এজেন্টকে বসতে বাধা দেওয়া এবং এজেন্টদের মারধর করার ঘটনায় উত্তেজনা ছড়িয়েছিল। অভিযোগের তীর ছিল তৃণমূলের দিকে। যদিও তৃণমূল নেতৃত্ব অভিযোগ অস্বীকার করেছে। চঞ্চল দাস বৈরাগ্য নামে এক বিজেপি সমর্থককে মারধরের অভিযোগ উঠেছিল তৃণমূলের বিরুদ্ধে। তাকে পুরশা স্বাস্থ্যকেন্দ্র ভর্তি করা হয়। 


অন্যদিকে গলসির শিরোরাই এলাকায় ভোটারদের ভোটদানে বাধা দেওয়ার অভিযোগ কে কেন্দ্র করে উত্তেজনা ছড়ায়। এক্ষেত্রেও অভিযোগের তীর ছিল তৃণমূলের দিকে। এই অভিযোগ পাওয়ার পর বিজেপি প্রার্থী বিকাশ বিশ্বাস ধর্ণায় বসে যাওয়ায় রীতিমত উত্তেজনা তৈরি হয়। 

সার্বিকভাবে ভোটের দিন সকাল থেকেই উত্তপ্ত হয়ে ওঠে গলসি বিধানসভার মনোহর সুজাপুর এলাকা। আর এরপরই গলসি থানার পুলিশ ড্রোন ক্যামেরার সাহায্যে এলাকায় এলাকায় নজরদারি শুরু করে। বিকেল ৪টে পর্যন্ত পাওয়া খবর অনুযায়ী নতুন করে গলসিতে কোনো অশান্তির খবর নেই।

0 Comments: