Headlines
Loading...
২১ বছর বয়সেই নজিরবিহীন সিদ্ধান্ত, বর্ধমানে ২১জনকে নিয়ে মরণোত্তর দেহদানের অঙ্গীকার

২১ বছর বয়সেই নজিরবিহীন সিদ্ধান্ত, বর্ধমানে ২১জনকে নিয়ে মরণোত্তর দেহদানের অঙ্গীকার


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমান: বর্ধমান মিউনিসিপ্যাল বয়েজ হাইস্কুলের প্রাক্তন ছাত্র সুদীপ্ত দাঁ-এর ২১তম জন্মদিনে নজীর সৃষ্টি হল। সুদীপ্ত জানিয়েছেন, এদিন ছিল তাঁর ২১তম জন্মদিন। আর তাঁর জন্মদিনেই তিনি পশ্চিমবঙ্গ বিজ্ঞান মঞ্চের বর্ধমান শাখায় তাঁর দেহদানের অঙ্গীকার পত্রে স্বাক্ষর করলেন। আগামী দিনে বিজ্ঞান তথা চিকিৎসা বিজ্ঞানকে আরও সমৃদ্ধ করতেই তাঁর এই উদ্যোগ। শুধু তিনিই নন, তাঁর এই ইচ্ছাকে সম্মান জানাতে এদিন তাঁর ২১জন বন্ধু, দাদাও এই মরণোত্তর দেহদানে অঙ্গীকারবদ্ধ হলেন। যা আগামী দিনের মেডিকেল ছাত্রদের কাজে সহায়তা করবে বলেই সকলের আশা। 



এদিন বিজ্ঞান মঞ্চের বর্ধমান শাখার কার্য্যকরী সভাপতি চন্দ্রনাথ বন্দোপাধ্যায় জানিয়েছেন, সুদীপ্ত দাঁ-এর এই ইচ্ছাকে তাঁরা সম্মান জানিয়েছেন। কারণ আজকের প্রজ্ন্ম এভাবে এগিয়ে না আসলে আগামী দিনে চিকিৎসা বিজ্ঞান উন্নত হবে না। সুদীপ্তের এই যে ভাবনা তা রীতিমত নজীরবিহীন। শুধু তাইই নয়, তার সঙ্গে এদিন ২১জন তাঁর বন্ধুও এই কাজে সংকল্প গ্রহণ করায় গোটা জেলার বুকে একটি নজীর সৃষ্টি হল।


 উল্লেখ্য, সুদীপ্তর এই সমগ্র ভাবনার সঙ্গে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছে পাল্লারোড পল্লী মঙ্গল সমিতির সদস্যরা। সমিতির সম্পাদক সন্দীপন সরকার জানিয়েছেন, মাত্র ২১বছর বয়সী একজন ছাত্রের এই ভাবনাকে তাঁরা উপেক্ষা করতে পারেননি। বাস্তবিকভাবেই তিনি এবং তাঁদের সমিতির সাত জন সদস্যও এই মরণোত্তর দেহদানের কর্মসূচিতে উদ্বুদ্ধ হয়ে এদিন বর্ধমান বিজ্ঞান মঞ্চ শাখায় এসে নিজেদের নাম নথিভুক্ত করেছেন। 
(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});