Headlines
Loading...
পূর্ব বর্ধমানে বুধবার থেকে খুলে গেল সমস্ত বালি ঘাট, বাধা নেই পরিবহনেও

পূর্ব বর্ধমানে বুধবার থেকে খুলে গেল সমস্ত বালি ঘাট, বাধা নেই পরিবহনেও


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমান: পূর্ব বর্ধমান জেলা প্রশাসনের নির্দেশে চলতি বছরের বর্ষা শুরুর মুখে গত জুলাই মাসের ১৩ তারিখ থেকে জেলার সমস্ত নদ নদী থেকে বালি উত্তোলন, লোডিং ও পরিবহন নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয়েছিল। কেবলমাত্র মজুদ বালি পরিবহনের ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হয়েছিল।



কিন্তু যেহেতু এবছর অতি বর্ষার কোনো প্রভাব এই জেলায় ছিল না, এবং তার ফলে জেলার নদনদী গুলিতে জলস্তর স্বাভাবিক রয়েছে তাই অন্যান্যবারের তুলনায় কিছুটা আগেই জেলা প্রশাসনের নির্দেশে বুধবার থেকেই খুলে দেওয়া হল সমস্ত বালি ঘাট। একইসাথে বালি উত্তোলন, লোডিং ও পরিবহনের ব্যাপারেও এদিন থেকে আর কোনো বাধা রইল না।



পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক বিজয় ভারতী বুধবার এই নির্দেশ জারি করেছেন। জেলা ভূমি ও ভূমি রাজস্ব দপ্তর সূত্রে জানা গেছে, এবছর নদীতে অতিরিক্ত জল না থাকার কারণে নদী গর্ভ থেকে বালি তোলার ক্ষেত্রে এই মুহূর্তে কোনো অসুবিধা নেই। আর সেই কারণে জেলা প্রসাশনের সংশ্লিষ্ট দপ্তরের আধিকারিকদের সঙ্গে আলোচনার পর জেলার নদনদী গুলি থেকে বালি তোলা ও পরিবহনের ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে। তবে প্রাকৃতিক কারণে যদি বৃষ্টির প্রকোপ বাড়ে, তখন পরিস্থিতি অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও প্রশাসন সূত্রে জানিয়ে রাখা হয়েছে।


এদিকে পুজোর মুখেই জেলা প্রশাসনের এই সিদ্ধান্তে যারপরনাই খুশি এই বালি ঘাটের সঙ্গে যুক্ত কয়েক হাজার শ্রমিক। বর্ধমান জেলার বিশিষ্ট বালি ব্যবসায়ী যোগেন্দ্র বর্মন জানিয়েছেন, প্রশাসনের এই সিদ্ধান্ত অত্যন্ত সময়োপযোগী। কারণ একদিকে করোনা অতিমারী, অন্যদিকে আমফান ঝড়ে জেলার কয়েকশো বালি ঘাটে কর্মরত শ্রমিকদের অর্থনৈতিক অবস্থা ভেঙে পড়েছে। এরই মধ্যে গত জুলাই মাস থেকে বালি ঘাট গুলো প্রশাসনের নির্দেশে বর্ষার জন্য বন্ধ হয়ে যায়। ফলে পরিস্থিতি আরও করুন হতে শুরু করে। তবে পুজোর মুখে বালি ঘাট গুলো খুলে যাওয়ায় আশাকরি সকলের মুখে হাসি ফুটবে। 

0 Comments: