728x90 AdSpace

Latest News

Tuesday, 16 June 2020

বর্ধমানে অনাথ শিশু থেকে ভবঘুরে, ভিখারিদের চুল, দাড়ি কাটার অভিনব উদ্যোগ



ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমান: টানা লকডাউনের কারণে সমস্ত সেলুন দীর্ঘদিন বন্ধ ছিল। এমনকি ঘুরে ঘুরে মানুষের চুল,দাড়ি কাটতেন এমন নাপিতরাও কর্মহীন হয়ে পড়েছিলেন। তবে এখন সব সেলুন খুলেছে। কিন্তু সমাজে কিছু মানুষ আছেন যাদের সেলুনে গিয়ে চুল, দাড়ি কাটার সামর্থ্য নেই। ফলে দিনের পর দিন চুল দাড়ি না কাটার ফলে অপরিষ্কার অবস্থায় থেকে যান তাঁরা। এবার এই সমস্ত ভবঘুরে, ভিখারি, অসহায় গরিব মানুষ সহ ছোট ছোট শিশুদের পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করার উদ্দেশ্যে এক অভিনব কর্মসূচি গ্রহণ করেছে বর্ধমান জেলা নাপিত সেলুন ওয়ার্কার্স ওয়েলফেয়ার সোসাইটি। আর এই উদ্যোগে সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়েছে পূর্ব বর্ধমান জেলা ব্যবসায়ী সুরক্ষা সমিতি।


আগামীকাল অর্থাৎ বৃহস্পতিবার বর্ধমান রেল স্টেশন চত্বরে বসবাসকারী প্রায় ৩০০ এমনি ভবঘুরে, ভিখারি সহ ছোটদের চুল ও বড়দের চুল, দাড়ি কাটার কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে। জেলা ব্যবসায়ী সুরক্ষা সমিতির সাধারণ সম্পাদক বিশ্বেশর চৌধুরী জানিয়েছেন, সমাজে সকলের সমান ভাবে বেঁচে থাকার অধিকার রয়েছে। এরই মধ্যে আর্থিক কারণে অনেক মানুষই নিজেদের পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখতে পারেন না। ফলে এঁদের অনেকেই বিভিন্ন শারীরিক সমস্যায় ভোগেন। অনেক সময় অপরিচ্ছন্নতার কারণে একজনের থেকে অন্যের মধ্যে রোগ জীবাণু ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনাও তৈরি হয়। তাই শহরের বিভিন্ন প্রান্তে ঘুরে বেড়ান বা স্টেশন এলাকায় থাকেন এমন ভবঘুরে, ভিখারি থেকে ছোট ছোট শিশুদের পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে।


তিনি জানিয়েছেন, এই উদ্যোগ সফল হলে আগামীদিনের এই কর্মসূচি চালু রাখা হবে। পাশাপাশি, জেলা নাপিত সেলুন সংগঠনের সম্পাদক বিধান পরামনিক জানিয়েছেন, তাদের সংগঠন দীর্ঘদিন ধরে জেলার বিভিন্ন জায়গায় ভবঘুরে, ভিখারি বা অসহায় মানুষদের বিনা পয়সায় চুল,দাড়ি কেটে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন করার কাজ করে আসছেন। এবার তাদের সংগঠন জেলা ব্যবসায়ী সুরক্ষা সমিতির সঙ্গে যুক্ত হয়ে যাওয়ায় এই কর্মসূচি বৃহৎ আকারে করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। তিনি জানিয়েছেন, শুধু বর্ধমান শহরেই প্রায় ৫০০ জন নাপিত তাদের সংগঠনের সঙ্গে যুক্ত। এছাড়াও জেলায় প্রায় পাঁচ হাজার সেলুন ও নাপিত এই সংগঠনের সদস্য আছেন। খুব শীঘ্রই সকলকেই ব্যবসায়ী সুরক্ষা সমিতির সদস্য পদ দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু করা হবে। 




বিশ্বেশর চৌধুরী জানিয়েছেন, সম্প্রতি সমিতির নতুন কমিটি গঠন করা হয়েছে। সভাপতি হিসাবে নির্বাচিত হয়েছেন বিশিষ্ট ব্যবসায়ী শীর্ষেন্দু সাধু। সহ সভাপতি পদে এসেছেন অনিরুদ্ধ চ্যাটার্জি, আইনুল হোক মল্লিক, গোপাল দাস, শিয়ানজি ওয়াং, সুভাষ বসু।


এছাড়াও অফিস সম্পাদক হয়েছেন রণধীর সিং ভুতুড়িয়া, উন্নয়ন সম্পাদক অমরনাথ সাউ, সাংস্কৃতিক সম্পাদক ষষ্ঠী মজুমদার ও সুকান্ত দাস, গণ সংযোগ সম্পাদক অরুনকান্তি গণ ও সজল ঘরুই, শ্রম সম্পাদক উত্তম সাহা, কোষাধ্যক্ষ মধুসূদন দাস এবং সাধারণ পর্ষদ পদে নির্বাচিত হয়েছেন তুষার পোদ্দার।

পাশাপাশি, দত্ত সেন্টার মার্কেটে সাত সদস্যের একটি নবনির্বাচিত কমিটি গঠন করা হয়েছে এবং রানীগঞ্জ বাজার থেকে সিএমএস স্কুল পর্যন্ত ব্যবসায়ীদের নিয়ে জোন ভিত্তিক আরও একটি নতুন কমিটি তৈরি করা হয়েছে বলে বিশ্বেশর চৌধুরী জানিয়েছেন। তিনি জানিয়েছেন, ধাপে ধাপে শহরের ব্যাবসায়িক ক্ষেত্রগুলোকে ২৫ টি জোনে ভাগ করে একটি করে কমিটি তৈরি করে দেওয়া হবে।
বর্ধমানে অনাথ শিশু থেকে ভবঘুরে, ভিখারিদের চুল, দাড়ি কাটার অভিনব উদ্যোগ
  • Blogger Comments
  • Facebook Comments

0 comments:

Post a comment

Top