728x90 AdSpace

Latest News

Sunday, 19 January 2020

বর্ধমানের অনাময় থেকে তিনদিনের শিশু কন্যাকে চুরি করে পালালো মহিলা, চাঞ্চল্য


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমান: সরকারি প্রকল্পের টাকা পাইয়ে দেবার নাম করে তিন দিনের কন্যা সন্তান কে চুরি করে পালালো এক মহিলা। রবিবার সকাল ১১টায় লোমহর্ষক এই ঘটনাটি ঘটেছে বর্ধমানের সুপার স্পেশালিটি হাসপাতাল অনাময় চত্বরে। আর এই ঘটনায় তীব্র আলোড়ন ছড়িয়ে পড়েছে জেলা জুড়ে। 

বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ডেপুটি সুপার অমিতাভ সাহা জানিয়েছেন, গত ১৭জানুয়ারি রায়নার শিপটা,উত্তরপাড়া এলাকার বাসিন্দা রিমা মালিক হাসপাতালের প্রসূতি বিভাগে একটি কন্যা সন্তানের জন্ম দেন। মা এবং সন্তান দুজনেই সুস্থ ছিলেন। রবিবার সকালে হাসপাতাল থেকে ছুটিও নিয়ে নিয়েছিলেন বাড়ি চলে যাবার জন্য। 

অমিতাভ সাহা জানিয়েছেন, এরপর এদিনই বেলা ১২টা নাগাদ তিনি জানতে পারেন ওই প্রসূতিকে সরকারি প্রকল্পে ৬ হাজার টাকা পাইয়ে দেবার নাম করে কেউ অনাময় হাসপাতালে নিয়ে গিয়ে শিশু সন্তান কে নিয়ে পালিয়ে গেছেন। এরপরই বিষয়টি বর্ধমান এবং শক্তিগড় থানায় জানানো হয়। পাশাপাশি বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এবং অনাময় হাসপাতালের সি সি টিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখা হয়। তিনি জানিয়েছেন, সি সি ফুটেজ পুলিশ কে তদন্তের স্বার্থে দেওয়া হচ্ছে। পাশাপাশি এই ঘটনায় বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পক্ষ থেকেও তদন্ত শুরু হয়েছে। 

হাসপাতাল সূত্রে জানা গিয়েছে, শুক্রবার প্রসব যন্ত্রণা নিয়ে বর্ধমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের প্রসুতি বিভাগে ভর্তি হন রায়না থানার সিপটা উত্তরপাড়ার বাসিন্দা রিমা মালিক। সেদিনই তিনি কন্যা সন্তান প্রসব করেন। শিশুটির ওজন ৩ কেজির মতো। রবিবার সকালে সদ্যজাত সহ প্রসূতিকে হাসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়। প্রসূতিকে নিতে হাসপাতালে আসেন শ্বশুরবাড়ির লোকজন। 

হাসপাতালেই শ্বশুরবাড়ির লোকজনের সঙ্গে ভাব জমায় এক মহিলা। প্রসূতির শ্বশুরবাড়ির লোকজনকে সে বলে, এখন কন্যা সন্তান হলে সরকার ৬ হাজার টাকা দিচ্ছে। সেই টাকা নিতে হলে অনাময় হাসপাতালে যেতে হবে। তার কথায় বিশ্বাস করে সদ্যজাত ও প্রসুতিকে টোটোয় চাপিয়ে অনাময়ে পৌঁছান শ্বশুরবাড়ির লোকজন। তাদের সঙ্গেই ওই মহিলাও অনাময়ে আসেন। এরপর টাকা পাওয়ার জন্য বিভিন্ন জায়গায় সদ্যজাতর বাবা-মাকে পাঠায় মহিলা। বাবা-মা ও শ্বশুরবাড়ির লোকজন টাকার জন্য ঘোরাঘুরি করার সময় সুযোগ বুঝে সদ্যজাতকে নিয়ে পালায় ওই মহিলা। 

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, ঘটনার তদন্তে নেমে বেশ কিছু তথ্য হাতে পেয়েছে পুলিশ। সিসি ক্যামেরার ফুটেজ ও মোবাইলের সূত্র ধরে সদ্যজাতকে চুরিতে এক মহিলার জড়িত থাকার কথা জানতে .পেরেছে পুলিশ। মোবাইলের সূত্র ধরে মহিলার পরিচয় জানতে পেরেছে পুলিশ। খণ্ডঘোষে ওই মহিলার শ্বশুর বাড়ি বলে জানতে পেরেছে পুলিশ। মহিলাকে ধরতে এবং সদ্যজাতকে উদ্ধার করতে বিভিন্ন জায়গায় তল্লাশি চালাচ্ছে পুলিশ।
                                          ছবি - ইন্টারনেট 
বর্ধমানের অনাময় থেকে তিনদিনের শিশু কন্যাকে চুরি করে পালালো মহিলা, চাঞ্চল্য
  • Blogger Comments
  • Facebook Comments

0 comments:

Post a Comment

Top