728x90 AdSpace

Latest News

Friday, 29 November 2019

বর্ধমান জেলায় সাব পোস্ট অফিসগুলিকে বন্ধ করার চক্রান্তের বিরুদ্ধে আন্দোলনে গ্রাহকরা


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমান:  পূর্ব বর্ধমান জেলার ২২টি সাব পোষ্ট অফিসকে হয় বন্ধ করে দেওয়া, নাহয় অন্য অফিসের সঙ্গে সংযুক্ত করে দেবার নির্দেশকে ঘিরে তীব্র চাঞ্চল্য ও আতংক সৃষ্টি হয়েছে গোটা জেলা জুড়েই। সম্প্রতি কলকাতার পোষ্টমাষ্টার জেনারেল অফিস থেকে এব্যাপারে পূর্ব বর্ধমান পোষ্টাল ডিভিশনে নির্দেশ এসেছে। প্রথম দফায় বর্ধমান শহরের ৬টি সাব পোষ্ট অফিসকে অন্য অফিসের সঙ্গে যুক্ত করার নির্দেশ জারী করে বলা হয়েছে। ৩০ নভেম্বরের মধ্যে এই প্রক্রিয়া সম্পন্ন করতে হবে। 

এদিকে, এই ঘটনায় রীতিমত আতংক দেখা দিয়েছে গ্রাহকদের মধ্যে। বিশেষত, সবথেকে বেশি আতংক দেখা দিয়েছে অবসরপ্রাপ্ত তথা পেনশন ভোগীদের মধ্যে। আর এই সংযুক্তিকরণের প্রতিবাদে শুক্রবার থেকে শুরু হল বর্ধমান পোষ্টাল বিভাগের পেনশনভোগীদের যুক্ত মঞ্চের উদ্যোগে প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ সমাবেশ। এদিন সুপারিনটেনডেণ্ট অফিসের সামনে এব্যাপারে প্রতিবাদ সভাও করলেন তাঁরা। যুক্তমঞ্চের আহ্বায়ক অশোক চ্যাটার্জ্জী জানিয়েছেন, পোষ্টাল বিভাগের এই নির্দেশে রীতিমত আতংক দেখা দিয়েছে পেনশনভোগীদের মধ্যে। এরফলে পেনশনভোগীদের চরম হয়রানির মধ্যে পড়তে হবে। 

অন্যদিকে, পোষ্টাল বিভাগের এই নির্দেশের তীব্র বিরোধিতায় নেমেছেন পোষ্টাল গ্রাহকরাও। ইতিমধ্যেই বিভিন্ন অঞ্চল থেকে গণস্বাক্ষর করে প্রতিবাদপত্র পাঠানো হচ্ছে পোষ্ট মাষ্টার জেনারেলের কাছেও। গ্রাহকরা জানিয়েছেন, এই কালা নির্দেশ প্রত্যাহার করা না হলে তাঁরা বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তুলবেন। যদিও এব্যাপারে এদিন অতিরিক্ত পোষ্টাল সুপারিনটেনডেণ্ট সুশান্ত শীল জানিয়েছেন, একটা নির্দেশ এসেছে বিভিন্ন সাব অফিসগুলির পরিস্থিতি কি তা খতিয়ে দেখার জন্য। কিন্তু কোনো অফিসকে বন্ধ করার কোনো নির্দেশ এখনও আসেনি।

তিনি জানিয়েছেন, পূর্ব বর্ধমান জেলায় মোট ৮৪টি সাব অফিস রয়েছে। কিন্তু এখনও সেভাবে কোনো বন্ধের নির্দেশ না আসায় তাঁরা কিছুই বলতে পারবেন না। অপরদিকে, এব্যাপারে এদিন পেনশনভোগীদের যুক্তমঞ্চের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে তাঁরা সবরকমের বিরোধিতা করবেন এই নির্দেশের বিরুদ্ধে।
বর্ধমান জেলায় সাব পোস্ট অফিসগুলিকে বন্ধ করার চক্রান্তের বিরুদ্ধে আন্দোলনে গ্রাহকরা
  • Title : বর্ধমান জেলায় সাব পোস্ট অফিসগুলিকে বন্ধ করার চক্রান্তের বিরুদ্ধে আন্দোলনে গ্রাহকরা
  • Posted by :
  • Date : November 29, 2019
  • Labels :
  • Blogger Comments
  • Facebook Comments

0 comments:

Post a Comment

Top