Headlines
Loading...
শেষ হলো তৃতীয় বর্ধমান শর্টফিল্ম ফেস্টিভ্যাল

শেষ হলো তৃতীয় বর্ধমান শর্টফিল্ম ফেস্টিভ্যাল



ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,বর্ধমান: বর্ধমান চলচ্চিত্র চর্চাকেন্দ্রের আয়োজনে শেষ হলো তৃতীয় বর্ধমান শর্টফিল্ম ফেস্টিভ্যাল৷ বর্ধমান সায়েন্স সিটি অডিটোরিয়ামে দেখানো হলো নির্বাচিত ২৩টি ছবি৷ স্থানীয় পরিচালকদের পাশাপাশি কলকাতার রূপকলা কেন্দ্র, বর্ধমান বিশ্ববিদ্যালয়ের মাস কমিউনিকেশন বিভাগ ও বর্ধমান ওমেন্স কলেজের ছাত্রীদের তৈরী ছবিও প্রদর্শিত হলো৷ প্রদর্শিত হলো অভিক নন্দী ও অভিক গুঁইন এর ছবি 'সংসার'৷ মনিদীপা সাহার ছবি দ্য হোম এন্ড দ্য ওয়ার্ল্ড। জয়ীতা দে মজুমদারের ছবি 'ফিরে দেখা', অনন্ত মন্ডলের ছবি 'একটু আলো', সৌভিক দাস ও কৃষ্ণকান্তের ছবি 'আই' ৷প্রর্দশিত হলো ঋষিগোপাল মন্ডলের তথ্যচিত্র 'সোনঝরি'৷ 

বর্ধমানের সোনা পট্টির ধুলো বালি কুড়িয়ে কঠিন পরিশ্রম করে সোনা খুঁজে বের করে বার করে কি ভাবে একটা সম্প্রদায় জীবন ধারন করছে, সেই গল্পের উপর তৈরী করা হয়েছে ছবি 'সোন ঝরি'৷ দেখানো হলো কে কে মল্লিক এর তথ্য চিত্র - 'এ স্লাইস অব নসটালজীয়া'৷ যেখানে তুলে ধরা হয়েছে বর্ধমান - কাটোয়া রুটে বন্ধ হয়ে যাওয়া ছোটলাইনের ছোট্ট রেলগাড়ির ৯৯ বছরের ইতিহাস৷ বন্ধ হয়ে যাওয়ার মূহুর্তে ছোট লাইনের ছোট্ট রেল গাড়ির প্রতি অসংখ্য মানুষের আবেগ, ভালবাসাকেই তুলে ধরতে চেয়েছেন কেকে মল্লিক তার তথ্যচিত্রে৷ 

বর্ধমান চলচ্চিত্র চর্চ্চা কেন্দ্রের সম্পাদক বাপ্পাদিত্ত দাঁ জানান, তাদের উদ্দেশ্যই হলো ভালো ছবি কে মানুষের সামনে তুলে ধরা ও তরুন পরিচালকদের ভালো ছবি করতে উৎসাহ দেওয়া৷ ছবি প্রদর্শনের শেষে অংশগ্রহণকারী পরিচালক দের হাতে শংশাপত্র তুলে দেন চর্চ্চাকেন্দ্রের সম্পাদক বাপ্পাদিত্য দাঁ, চর্চ্চাকেন্দ্রের সভাপতি ডা:অশোক মজুমদার সহ বিশিষ্ঠ ব্যক্তিবর্গ৷
(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});