Headlines
Loading...
ভাতারে সমবায়ের কৃষিবীমার টাকা ম্যানেজারের তুলে নেওয়ার ঘটনায় চাঞ্চল্য

ভাতারে সমবায়ের কৃষিবীমার টাকা ম্যানেজারের তুলে নেওয়ার ঘটনায় চাঞ্চল্য


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,বর্ধমান: ভাতারের বনপাস সমবায় কৃষি উন্নয়ন সমিতি লিমিটেডের চাষীদের জন্য বরাদ্দ প্রায় ৫৫ লক্ষ টাকা সমবায় সমিতির ম্যানেজার ব্যাঙ্ক থেকে তুলে নেওয়ার ঘটনার ব্যাপক উত্তেজনা ছড়ালো। বৃহস্পতিবার এই ঘটনায় গোটা এলাকায় ক্ষোভ ছড়ায়। চাষীরা সমবায় সমিতিতে গিয়ে বিক্ষোভও দেখান।

জানা গেছে, ভাতার থানার বনপাশের এই সমবায় সমিতির অধীনে রয়েছে ১৭১ জন চাষী। গত ২০১৮ সালে চাষীদের জন্য সরকারীভাবে প্রায় ৬০ লক্ষ টাকা বরাদ্দ করা হয়। সম্প্রতি সেই টাকা চাষীদের নিজস্ব একাউণ্টে ঢুকতে শুরু করে। এব্যাপারে চাষীদের মোবাইলে মেসেজও আসে। কিন্তু এরপরই তাঁরা জানতে পারেন, বীমা বাবদ সরকারী সেই টাকা ওই সমবায় সমিতির ম্যানেজার তুলে নিয়েছেন। আর এই ঘটনায় ব্যাপক উত্তেজনা ছড়ায়।

চাষীদের অভিযোগ, সমবায় সমিতির ম্যানেজার ওই অর্থ আত্মসাত করেছেন। এই ঘটনায় বৃহস্পতিবার তাঁরা সমবায় সমিতিতে গিয়ে বিক্ষোভও দেখান। যদিও এব্যাপারে ওই ম্যানেজার চন্দ্রশেখর রায় স্বীকার করেছেন টাকা তুলে নেবার বিষয়টি। তিনি জানিয়েছেন, চাষীদের কৃষিঋণ বাবদ টাকা বকেয়া রয়েছে। সেইজন্য ওই টাকা চাষীদের সম্মতিতেই তিনি তুলে রেখেছেন। কৃষি ঋণের টাকা বাদ দিয়ে বাকি টাকা ফেরত দেওয়া হবে।

তিনি দাবী করেছেন, এব্যাপারে চাষীদের কাছ থেকে সম্মতিও নেওয়া হয়েছে। এমনকি টাকা তোলার ফর্মে চাষীদের স্বাক্ষরও করানো হয়েছিল। তিনি জানিয়েছেন, টাকা আত্মসাতের কোনো ঘটনাই নেই। যদিও এদিন সুমন বন্দোপাধ্যায় নামে এক চাষী জানিয়েছেন, তিনি মাস দুয়েক হল কৃষি ঋণ নিয়েছেন। ঋণ পরিশোধের সময়সীমা এখনও শেষ হয়নি। তাহলে তাঁর টাকা কেন তুলে নেওয়া হয়েছে? ওদিকে বিক্ষোভ চলাকালীনই চাষীদের প্রাপ্য টাকা ফেরত দেবার ব্যাপারে রীতিমতো লিখিত আকারে চাষীদের হাতে তুলে দেন সমিতির সম্পদ। এদিন চাষীরা জানিয়েছেন, কৃষিবীমা বাবদ তিনি তাঁর টাকা না পেলে তিনি ম্যানেজারের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ জানাবেন।

0 Comments: