Headlines
Loading...
পালিত হল বাংলাদেশের গণহত্যা দিবস এবং ৪৯তম স্বাধিনতা দিবস

পালিত হল বাংলাদেশের গণহত্যা দিবস এবং ৪৯তম স্বাধিনতা দিবস



ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,কলকাতাঃ  কলকাতার বাংলাদেশ উপ হাইকমিশন পালন করল দেশের  গণহত্যা দিবস এবং ৪৯তম স্বাধিনতা দিবস ৷ ১৯৭১ সালে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী কতৃক  বাংলাদেশে নারকীয় হত্যাকান্ডের তীব্র ধিৎকার জানান হলো ৷ প্রদর্শিত হলো নারকীয় হত্যাকান্ডের আলোকচিত্র প্রদর্শনি এবং প্রদর্শিত হলো হত্যাকান্ডের ওপর নির্মিত প্রামান্যচিত্র ৷ বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী কতৃক প্রদত্ত বানীপাঠ করেন যথাক্রমে দূতাবাস প্রধান বিক্রম জামাল হোসেন ও কাউন্সেলর মনসূর আহমেদ ৷ হাজির ছিলেন উপহাইকমিশনার তৌফিক হাসান, উপহাইকমিশনের প্রথম প্রেস সচিব মোঃ মোফাকখারুল ইকবাল সহ বহুবিশিষ্ঠ ব্যক্তিবৃন্দ ৷

 
উপ হাইকমিশনারের বক্তব্যে উঠে আসে 'বাংলাদেশের মুক্তি যুদ্ধে নির্মম গণহত্যার স্বীকৃতি খোদ পাকিস্তান সরকার প্রকাশিত দলিলেও আছে ৷' ১৯৭১ সালের ১লা মার্চ থেকে ২৫ মার্চ রাত পর্যন্ত এক লক্ষেরও বেশি মানুষের জীবনহানি হয়েছিল ৷ এরপরই ২৬ মার্চ আসে মহান স্বাধীনতা দিবস ৷ দেখতে দেখতে বাংলাদেশ পৌঁছে গেলো ৪৯ তম মহান স্বাধীনতা দিবসে ৷ শ্রদ্ধার সঙ্গে স্মরন করা হলো বাংলাদেশের স্থপতি তথা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান সহ বীর বিপ্লবীদের ৷ বিশ্বের সর্বত্র ছড়িয়ে থাকা বাংলাদেশীরা মেতে ওঠেন এই জাতীয় দিবসে ৷ কলকাতায় বাংলাদেশি দের মাঝে শুভেচ্ছা ছড়িয়ে দিলেন এটিএন বাংলার কলকাতার কর্ণধার তপন রায় ৷ বিজয় দিবসের অনুষ্টানে মিশে গেলো এপার - ওপার দুই বাংলাই।

0 Comments: