728x90 AdSpace

Latest News

Monday, 28 January 2019

আট দিন নিখোঁজ থাকার পর কালনায় উদ্ধার মৃতদেহ,চাঞ্চল্য এলাকায়



ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,কালনাঃ আট দিন আগে কালনা শহরের কদমতলা সংলগ্ন পুকুর থেকে এক যুবকের মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। মৃত যুবকের পরিচয় অজানা থাকায় মৃতদেহটি কালনা মহকুমা হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়। সোমবার সকালে কালনা মহকুমা হাসপাতালে গিয়ে পরিবারের লোক জনেরা ওই মৃত যুবকের দেহ সনাক্ত করেন। পুলিশ জানিয়েছে, মৃত যুবকের নাম সুজিত বিশ্বাস। বয়স ৩২। বাড়ি নবদ্বীপ শহরের ভর পাড়ায়। 

সোমবার মৃত সুজিতের বৌদি টুসু বিশ্বাস জানিয়েছেন, সুজিত আগাগোড়াই চাদর-কম্বল মশারি বিক্রি করতে গ্রামে গ্রামে যেত। গত ২০ জানুয়ারি বাড়ি থেকে ফেরি করতে বের হয়। সেই থেকে আর বাড়ীতে ফিরে আসেনি। তারপরে নিখোঁজ ডায়েরি করা হয় নবদ্বীপ থানায়। ২৪ তারিখ কালনা থানার কদমতলা সংলগ্ন পুকুরের মধ্যে ওই যুবকের মৃতদেহ ভাসতে দেখেন এলাকার বাসিন্দারা। পুলিশ খবর পেয়ে মৃতদেহটি উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। কিন্তু পরিচয় না জানার কারণে কালনা হাসপাতালের মর্গে রেখে দেওয়া হয় মৃতদেহটি। সোমবার পরিবারের লোকজন খবর পেয়ে হাসপাতালে আসেন। সুজিত বিশ্বাস এর দেহ সনাক্তকরণ করেন তারা। সুজিতের স্ত্রী অনিমা বিশ্বাস জানিয়েছেন, তার স্বামী নিখোঁজ থাকার পর স্বামীর ফোনে ফোন করলে কেউ জানায় যে ৬ হাজার টাকা দিলে সুজিত কে ছেড়ে দেওয়া হবে। পরপর দুবার ফোন করার পর আর ফোনে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি। অনিমা বিশ্বাস আরো জানিয়েছেন, তাদের পরিচিতি একজন জানিয়েছিল যে সুজিত কে ঠিক সময়ে ছেড়ে দেওয়া হবে। অনিমা বিশ্বাস দাবি করেছেন, তিনি ১০ হাজার টাকা দিতে চেয়েছিলেন। তবু তার স্বামীকে ছাড়া হয়নি। তার স্বামীকে মেরে জলে ফেলে দেয়া হয়েছে বলে দাবি অনিমা বিশ্বাসের। 

নবদ্বীপ শহরের ভর পাড়ার বাসিন্দাদের দাবি সুজিত ভালো ছেলে ছিল। কিন্তু এই ধরনের ঘটনা ঘটবে তারা ভাবতেই পারেনি। তাদের দাবি, সুজিত খুন হয়েছে কিনা পুলিশ তদন্ত করে বের করুক। যদি খুন হয়ে থাকে তাহলে দোষীদের গ্রেফতার করে কঠোর শাস্তি হোক। পুলিশ ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে। 
আট দিন নিখোঁজ থাকার পর কালনায় উদ্ধার মৃতদেহ,চাঞ্চল্য এলাকায়
  • Blogger Comments
  • Facebook Comments

0 comments:

Post a comment

Top