728x90 AdSpace

Latest News

Wednesday, 11 July 2018

বাম আমলে ধুঁকতে থাকা গ্রন্থাগারগুলি নবজীবন পেয়েছে - সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরী


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমানঃ
পূর্ব বর্ধমান জেলায় ২০৯টি গ্রন্থাগারে যেখানে প্রায় ৪৫০ জন কর্মী থাকার কথা, সেখানে কর্মী রয়েছেন মাত্র ১৫০জন। রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী দ্রুত এই শূন্যপদ পূরণের চেষ্টা করছেন। ইতিমধ্যেই পূর্ব বর্ধমান জেলায় ১৪জন অবসরপ্রাপ্ত কর্মীকে গ্রন্থাগারগুলিকে নিয়োগ করার প্রক্রিয়া শেষের পথে বলে জানালেন রাজ্যে গ্রন্থাগার ও জনশিক্ষা দপ্তরের রাষ্ট্রমন্ত্রী সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরী। 

বুধবার বর্ধমানে বর্ধমান পূর্ব ও পশ্চিম বর্ধমানের গ্রন্থাগার দপ্তরের কর্মীদের নিয়ে রিভিউ বৈঠক করেন তিনি। পরে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, বাম আমল থেকেই গ্রন্থাগারগুলিতে কর্মী শূন্যতা রয়েছে। বাম আমলে গ্রন্থাগারগুলি ধুঁকছিল। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের উদ্যোগে সেগুলিকে নবজীবন দেওয়া হয়েছে। এখন গ্রন্থাগারগুলিতে পাঠকের হার অনেক বেড়েছে। গ্রন্থাগারের মাধ্যমে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক স্কুলের ছাত্রছাত্রীদের প্রয়োজনীয় রেফারেন্স বই দেবার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। পূর্ব বর্ধমান জেলায় ৭৭টি স্কুলকে এব্যাপারে যুক্ত করা হয়েছে। এছাড়াও গ্রন্থাগারগুলিতে এখন চাকরীর, ডবলু বি সি এস পরীক্ষার প্রস্তুতি সহায়ক বিবিধ ব্যবস্থা করা হয়েছে।
সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরী এদিন জানিয়েছেন, পূর্ব বর্ধমান জেলায় জনশিক্ষা প্রসার দপ্তরের উদ্যোগে একটি মহিলাদের হোম তৈরীর পরিকল্পনা রয়েছে তাঁদের। এব্যাপারে নির্দিষ্ট কোনো পরিকল্পনা এলে তাঁরা উদ্যোগ নেবেন। এরই পাশাপাশি তিনি জানিয়েছেন, গোটা রাজ্যের সমস্ত গ্রন্থাগারগুলির হিসাব নিকাশকে কড়াভাবে পরীক্ষা নিরীক্ষা করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।
বাম আমলে ধুঁকতে থাকা গ্রন্থাগারগুলি নবজীবন পেয়েছে - সিদ্দিকুল্লাহ চৌধুরী
  • Blogger Comments
  • Facebook Comments

0 comments:

Post a comment

Top