728x90 AdSpace

Latest News

Tuesday, 28 May 2019

আচমকাই বদল পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক, রাজনৈতিক চাপেই বদলী - বিতর্ক



ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,বর্ধমানঃ ভোট মিটতে না মিটতেই সরিয়ে দেওয়া হল পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক অনুরাগ শ্রীবাস্তবকে। সোমবার রাতেই তাঁর বদলী সংক্রান্ত নোটিশ জারী হয়। তাঁকে বদলী করা হল রাজ্যের ক্ষুদ্র ও কুটিরশিল্প দপ্তরের ডিরেক্টর করে। তাঁর জায়গায় পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক হিসাবে আসছেন ক্ষুদ্র ও কুটিরশিল্প দপ্তরের ডিরেক্টর বিজয় ভারতী। আগামী সোমবার দুজনেই পরিবর্তিত পদে যোগ দেবেন বলে জানা গেছে। 

এদিকে, আচমকাই জেলাশাসক অনুরাগ শ্রীবাস্তবকে বদলী করার ঘটনায় ব্যাপক চর্চা শুরু হয়েছে জেলা জুড়েই। সাধারণত, রুটিন মাফিক প্রশাসনিক স্তরে রদবদল হলে তা নিয়ে আগাম চর্চা হয়। স্বাভাবিকভাবে কে কোথায় যাচ্ছেন তা নিয়ে অনেক আগে থেকেই প্রশাসনিক স্তরে একটা আভাষ এসে পৌঁছায়। কিন্তু যেভাবে আচমকাই জেলাশাসককে বদলী করা হয়েছে তা নিয়ে ব্যাপক জল্পনা শুরু হয়েছে। উল্লেখ্য, লোকসভা নির্বাচনে বর্ধমান দুর্গাপুর লোকসভা আসনে পরাজিত হন তৃণমূল প্রার্থী মমতাজ সংঘমিতা। তৃণমূল কংগ্রেস এই হারকে মেনে নিতে পারেনি। গণনার দিন গভীর রাত পর্যন্ত লোকসভার সমস্ত বুথেরই পুর্নগণনার দাবী জানাতে থাকেন তৃণমূল নেতৃত্ব। এমনকি তৃণমূল কংগ্রেসের জেলা সভাপতি তথা রাজ্যের মন্ত্রী স্বপন দেবনাথের নেতৃত্বে জেলা পরিষদের সহকারী সভাধিপতি দেবু টুডু সহ গুটি কয়েক নেতা ইউআইটির গণনা কেন্দ্রের সামনে জিটি রোডেই বসে পড়ে অবস্থান শুরু করে দেন। যদিও তৃণমূলের এই অভিযোগ এবং আব্দারকে পাত্তা দেয়নি জেলা প্রশাসন। 

জেলা প্রশাসন সূত্রে জানা গেছে, নির্বাচন কমিশনের নিয়মানুযায়ী নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী এবং তাঁর ইলেকশন এজেণ্ট এব্যাপারে কোনো আপত্তিই দাখিল করেনি। ফলে নির্বাচন কমিশনের নির্দেশ অনুসারে বাকি কে কি দাবী জানালো তা গ্রাহ্যনীয় নয়। স্বাভাবিকভাবেই পূর্ব বর্ধমান জেলা প্রশাসন তৃণমূলের নেতাদের এই দাবীকে কোনোরকম মান্যতাই দেয়নি। এদিকে, আচমকাই জেলাশাসককে বদলী করে দেবার পিছনে গণনার দিনের ওই ঘটনাই দায়ী বলে মনে করছেন প্রশাসনিক কর্তা সহ রাজনৈতিক কর্মীদের একাংশ। যদিও এব্যাপারে জেলাশাসক অনুরাগ শ্রীবাস্তব কিছু বলতে চাননি। তিনি জানিয়েছে্ন,সোমবার রাতেই তিনি আচমকা দেখেন তাঁকে বদলী করা হয়েছে ক্ষুদ্র ও কুটিরশিল্প দপ্তরের ডিরেক্টর করে। জেলাশাসক জানিয়েছেন, বর্ধমানে তিনি যতদিন কাজ করেছেন ভালভাবেই কাজ করেছেন। চেষ্টা করেছেন বর্ধমানের উন্নয়নের। তাঁর আশা ছিল বর্ধমান কাটোয়া রেলওয়ে ওভারব্রীজ উদ্বোধন তাঁর আমলেই হবে। কিন্তু না হওয়ায় তাঁর আক্ষেপ থেকে গেল। তিনি জানিয়েছেন, সোমবার তিনি কলকাতায় যোগ দেবেন।
আচমকাই বদল পূর্ব বর্ধমানের জেলাশাসক, রাজনৈতিক চাপেই বদলী - বিতর্ক
  • Blogger Comments
  • Facebook Comments

0 comments:

Post a Comment

Top