728x90 AdSpace

Latest News

Thursday, 8 November 2018

পূর্ব বর্ধমানে চাষের ক্ষতি দেখতে সাইকেলেই এলাকা পরিদর্শন সভাধিপতির


ফোকাস বেঙ্গল ডেস্ক,পূর্ব বর্ধমানঃ আমন চাষে সেচের জল নিয়ে ভয়াবহ সংকট চলছে পূর্ব বর্ধমান জেলা জুড়েই। চাষ বাঁচাতে জেলা প্রশাসন একাধিক উদ্যোগও নিয়েছেন। কিন্তু তাতেও চাষীদের দুশ্চিন্তা দূর হচ্ছে না। ইতিমধ্যেই জেলা কৃষি দপ্তর সূত্রে জানা গেছে, আমনে সেচের জলের সংকটের জেরে প্রায় ৪০ হাজার একর এলাকায় ধানের ক্ষতি হবার সম্ভাবনা রয়েছে। জেলার ভাতার, আউশগ্রাম, মঙ্গলকোট, গলসী,রায়না, খণ্ডঘোষ প্রভৃতি এলাকায় চাষীদের মধ্যে রীতিমত আশংকার কালো মেঘ ছেয়েছে।


এদিকে, জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে আশ্বাস দিলেও বাস্তবে জলের অভাবে মাঠেই ফলিত ধান মরে যেতে বসেছে দেখে এবার সরাসরি মাঠে গিয়ে পরিস্থিতি খতিয়ে দেখলেন পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের সভাধিপতি। খন্ডঘোষ ব্লকের কিছু চাষের জমিতেও জলের অভাবে ধান নষ্ট হয়ে যাচ্ছে বলে খবর পেয়েছিলেন পূর্ব বর্ধমান জেলা পরিষদের সভাধিপতি শম্পা ধাড়া। বৃহস্পতিবার ছিল ছুটির দিন। তাই কিছু কৃষকের সঙ্গে সাইকেল চালিয়ে বিভিন্ন মৌজার কিছু চাষ জমি ঘুরে দেখলেন তিনি। তিনি এদিন জানিয়েছেন, জলের সংকটে চাষের ক্ষতি হচ্ছে বলে শুনছিলেন। তাই মাঠেমাঠে ঘুরে ক্ষতির প্রকৃত চিত্র দেখতে বেরিয়েছিলেন। কালসী, শ্যামাডাঙা, জোতনেওয়াজি,বেরুগ্রাম, বাড়িশালি,বামুনাড়ি, দুবরাজহাট প্রভৃতি বেশ কয়েকটি মৌজা ঘুরেছেন। সাবমার্সেবল, পাম্প, পুকুর থেকে যতটা সম্ভব জলের ব্যবস্থা করা হয়েছে। আগেও কয়েকদিন বেরিয়েছিলেন। মুখ্যমন্ত্রী চাষীদের উন্নতির চেষ্টা করছেন। তিন চেষ্টা করছেন চাষীদের সঙ্গে থেকে তাঁদের সমস্যা সমাধানের।


অন্যদিকে এই জল সংকটের বিষয়ে মুখ্যমন্ত্রীর প্রধান কৃষি উপদেষ্টা প্রদীপ মজুমদার জানিয়েছেন, প্রাকৃতিক কারণে তৈরি হওয়া এই সমস্যা মোকাবিলায় এবং চাষিদের পাশে থেকে সর্বতভাবে সাহায্য কারার জন্য সমস্ত দপ্তরের আধিকারিক থেকে জন প্রতিনিধিরা ক্রমাগত কাজ করে চলেছেন। যে অঞ্চলে যে ভাবে জলের অভাব মেটানো যেতে পারে তার ব্যাবস্থা করা থেকে নজরদারি চালিয়ে যাচ্ছেন সকলেই। তিনি জানান, আগামি সপ্তাহে পূর্ব বর্ধমানের চাষের জলের পরিস্থিতি এবং ক্ষয় ক্ষতি খতিয়ে দেখতে তিনি বর্ধমান আসছেন।
পূর্ব বর্ধমানে চাষের ক্ষতি দেখতে সাইকেলেই এলাকা পরিদর্শন সভাধিপতির
  • Blogger Comments
  • Facebook Comments

0 comments:

Post a Comment

Top